ধারাবাহিক ক্ষুদে বিজ্ঞানীর ক্লাব - 1 পর্ব (28)

বেশির ভাগ সময় দুপুর বেলা দাদু বাইরে থেকে হাঁপাতে হাঁপাতে বাড়ি ফেরেন।
ফিরেই এক গ্লাস পানি সাথে বেশ কয়েক টুকরো বরফ নিয়ে বারান্দায় বসে পড়েন।
তারপর অনেক সময় নিয়ে গ্লাস খালি করেন। মুখ দিয়ে আহ আহ শব্দ করে বুঝিয়ে
দেন বেশ তৃপ্তির মধ্যে আছেন,
গ্লাসটা যখন নাড়াচাড়া করেন তখন ভেসে থাকা বরফগুলো টুং টাং শব্দ করে।
আচমকা মনে হল- ঠাণ্ডা পানি ওজনে ভারি হয়। আর বরফ তো পানির আরেক রূপ।
তাহলে বরফ পানিতে ভেসে থাকে কেন ?
কাঁচের এক বাউলে করে পানি নিলাম। আগে থেকেই ফ্রিজে এক ট্রে বরফ বানিয়ে রেখেছিলাম। বরফের টুকরোগুলো বাউলের পানিতে ছেড়ে দিলাম। ওরা দিব্যি ভেসে বেড়াচ্ছে। বরফের টুকরো যত বড় হউক না কেন ভেসে বেড়াবে।
আসলে পানি জমাট বেঁধে যখন বরফ হয় তখন আকারে বেড়ে যায় বহুগুণ। কিন্তু
ওজন যায় কমে। ঘনত্ব ও কমে যায়। ঠিক যেন কাঠ বা কর্কের মত। ফলে ভেসে থাকে।
শীতের দেশগুলোতে দেখবে শীতের মৌসুমে নদী জমে বরফ হয়ে যায়। উপর দিয়ে লোকজন হেঁটে বেড়াতে পারে। কিন্তু বরফের তলায় কুলকুল করে পানি বয়ে যায়।
মাছ বা অন্যান্য প্রাণী ঠিকই বেঁচে থাকে। কোন অসুবিধে হয় না।
সমুদ্রে বিশাল সব বরফ ভেসে থাকে । আইস বারগ বলে ওদের।
অনেক সময় বড় বড় জাহাজ গুলো মেশিন দিয়ে বরফ কেটে চলাচল করে।

Series Navigation<< মহাকাশের আবর্জনাশূন্য জায়গায় কি থাকে ? >>

মতামত জানান