মায়ের জন্য ভালবাসা

তোমরা অনেকেই প্রশ্ন কর, আমার লেখায় গাছ, লতা পাতা এই সব হাবিজাবির অত বর্ণনা ঘুরে ফিরে আসে কেন ? বলা মুশকিল, হতে পারে সবুজ প্রকৃতির মধ্যে বড় হয়েছি বলে। অনেক সুন্দর ছিল তখনকার পরিবেশ। পথে ঘাটেই দেখা যেত রাংচিতার ঝোপ। … Continue reading মায়ের জন্য ভালবাসা

সন্দেশপুরের ড্রাগন

কার্ত্তিক মাস শেষ হতে না হতেই সন্দেশপুরে ঝুপ করে শীত পরে গেল। যেমন তেমন শীত না। খবরের কাগজে যেমন লেখা থাকে- তীব্র শীতের প্রকোপে জনজীবন অতিষ্ঠ …হেন তেন। সেই রকম শীত। সারাক্ষণ শনশন করে ঠাণ্ডা বাতাস বইতে লাগল। রাজপ্রাসাদের নানান … Continue reading সন্দেশপুরের ড্রাগন

তারাপদ বাবুর একদিন

তারাপদ বাবু সেই ছোটবেলা থেকে শুনে আসছেন.জিনেরা মিষ্টি খেতে পছন্দ করে। শুধু তাইনা,যে দোকানেরমিষ্টি একবার ওদের ভাল লেগে যায় সেই দোকানের মালিকের অবস্থা একেবারে পোয়াবারো হয়ে যায়।গভীর রাতে জিনেরা আসে ছদ্মবেশ নিয়ে।বেশিরভাগ সময়ইসাদা পোশাক পরা হুজুর সেজে আসে।দশ পনেরো কেজি … Continue reading তারাপদ বাবুর একদিন

পনির

জানালার কাঁচের শার্সি দিয়ে পনিরের মত নরম আলো দেখা যাচ্ছে …। কোন একটা লেখায় অমন লিখেছিলাম। এক পাঠক ইচ্ছা মত কচলে দিল। ভাই ইয়ার্কি মারেন নাকি ? রেগে বলল সে। জানালা দিয়ে পনির বাইর অয় কেমনে? ফালতু উপমা দ্যান ক্যান … Continue reading পনির

চকলেট চকলেট

এক অদ্ভুত মনকাড়া জিনিস। আবাল বৃদ্ধ বনিতা সবাইকে মুগ্ধ করে ফেলে। কল্পনা করুন -চারকোণা বার আকৃতির জিনিসটা। কেনিয়ার মাসাই মেয়েদের গায়ের রঙের মত রঙ। অথবা লিচুর দানার মত। মিষ্টি মন মাতানো ঘ্রান। আস্তে কামড় দিন। অপূর্ব মিষ্টি স্বাদ। বিভূতিভূষণের ভাষায় … Continue reading চকলেট চকলেট

সীজার সালাদ

প্রায় শ’খানেক বিভিন্ন জাতের সালাদ বানাই আমি সপ্তাহে। কিন্তু লিখতে গিয়ে প্রথমে কেন সীজার সালাদের কথা টেনে আনলাম ? কারণ শুধুমাত্র এই একটা সালাদ বানাতে পারলেই পৃথিবীর অনেক দেশের বড় বড় হোটেল বা রেস্টুরেন্টে ভাল কাজ পেয়ে যাবেন আপনি। এবং … Continue reading সীজার সালাদ

দ্বীপের গল্প

এখানে একটা সৈকতের নাম পাউ পাউ বীচ( paw paw beach)।কি অদ্ভুত নাম! আদিবাসীদের ভাষায় আর অর্থ হচ্ছে-সুগন্ধি সৈকত । এরই বা মানে কি?দ্বীপের সৈকতগুলোতে শুধু নোনা পানির ঘ্রান আর সামুদ্রিক আগাছা পচা ঘ্রান ছাড়া আর কিছু পাইনি। তাহলে ঐ সৈকতটা … Continue reading দ্বীপের গল্প

এক ফালি শৈশব

দিনগুলো ভালই ছিল। দুধের সরের মত কুয়াশা পড়ত সন্ধে বেলা। গরিব মানুষগুলো শুকনো লতাপাতা আর গাছের বাকল দিয়ে আগুন জ্বালাত। চারদিকে গোল হয়ে বসে ওম্ পোয়াতো ওরা। খেলার মাঠ থেকে বাড়ি ফিরতাম আমি। বাতাসে ভেসে আসত কাঠ পোড়া মিষ্টি গন্ধ। … Continue reading এক ফালি শৈশব

রাক্ষস

” মামা, আপনি কি ঝিঙ্কু ভাইকে ‘ হরর’ গল্প দিয়েছেন?” জিজ্ঞেস করল আমার শাগরেদ। সিডনি, অস্ট্রেলিয়া। বিখ্যাত একটা রেস্টুরেন্টের কিচেনে ব্যস্ত আমি। সামনেই গ্রিল। তাতে ঝলসানো হচ্ছে এক ডজন স্যামনমাছের ফালি, কয়েক মুঠো ( প্রায় ৩ কেজি) বাচ্চা অক্টোপাস, কয়েকটা … Continue reading রাক্ষস